1. sjranabd1@gmail.com : Rana : S Jewel
  2. solaimanjewel@hotmail.com : kalakkhor : kal akkhor
ভয় ! মানব মনে ভয়ের উৎপত্তি কারণের সাইকোলজিক্যাল ব্যাখ্যা - কালাক্ষর
শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ০২:২৭ পূর্বাহ্ন

ভয় ! মানব মনে ভয়ের উৎপত্তি কারণের সাইকোলজিক্যাল ব্যাখ্যা

  • Update Time : মঙ্গলবার, ২৩ জানুয়ারী, ২০২৪

ভয় মানব জীবনের এক অবিচ্ছেদ্য অংশ। আমাদের সফলতার প্রধান ও এক মাত্র বাধা হিসেবে যাকে ধরা হয় তা হল ভয়। কিন্তু মানুষ কেন ভয় পায়? এর পিছনের সাইকোলজী কি? এ নিয়ে জন হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়াটসন এবং রেয়নার ১৯২০ সালে একটি পরীক্ষণ চালান, নয় মাস বয়সী শিশু অ্যালবার্টের উপর। যা মনোবিজ্ঞানের ইতিহাসে ‘Little Albert Experiment’ নামে সুপরিচিত।

বিজ্ঞানীদয়ের এক্সপেরিমেন্টের উদ্দেশ্য ছিলো মানসিকভাবে স্বাভাবিক একটি শিশুকে কীভাবে নানা ধরনের ফোবিয়া গ্রাস করে তার কারণ অনুসন্ধান করা। এজন্য তারা স্বাভাবিক অ্যালবার্টের মধ্যে কীভাবে ভয়ের বীজ রোপণ করা যায় তা বের করার চেষ্টা করতে থাকেন। প্রথমে তারা একটি সাদা ইঁদুর শিশুটির সামনে আনেন।

প্রথমে শিশুটির অন্য কোনো প্রানীতে কোনো প্রকার ভয় ছিলো না। তাই সে স্বাভাবিক আচরণ করতে লাগলো। এরপর তারা অ্যালবার্টের পিছনে বসে ধাতব কোনো কিছু দিয়ে শব্দ তৈরি করেন। যার কারণে ছোট্ট অ্যালবার্ট ভয় পয়ে কেঁদে ওঠে। এরপর তারা বেশ কয়েকবার ধাতব শব্দ এবং একটি নিরীহ সাদা ইঁদুর এই দুইয়ের মিশেলে অ্যালবার্টকে ভয় পাইয়ে দেন। এরপর যে ব্যাপারটি ঘটলো তা মোটামুটি ভয়াবহ।

নিরীহ সাদা ইঁদুরটি এরপর যতবারই অ্যালবার্টের সামনে আসলো, ততবারই সে ভয় পেয়ে কেঁদে উঠলো, যদিও এবার কোনো শব্দ ছিল না। শুধু তাই নয়, সে ইঁদুরের মতো দেখতে যেকোনো কিছুতেই ভীতি প্রদর্শন করতে লাগলো। তার মধ্যে ছিলো লোমশ কুকুর, সিলের চামড়ার কোট, এমনকি সান্টা ক্লজের লোমশ মুখোশ! বলা হয়ে থাকে নয় মাস বয়সী অ্যালবার্ট তার মায়ের সাথে যে বিল্ডিংয়ে থাকতো, সেখানেই থাকতেন ওয়াটসন (মনোবিজ্ঞানের আচরণবাদের জনক) । তার মা জানতেন না যে, তার বাচ্চাকে একটি এক্সপেরিমেন্টে গিনিপিগের মতো ব্যবহার করা হচ্ছে।

যখন তিনি জানতে পারেন, তখন তিনি কাউকে না জানিয়ে অ্যালবার্টকে নিয়ে দূরে কোথাও চলে যান। এটি তিনি করেন এক্সপেরিমেন্ট চলাকালীন সময়ের একেবারে শেষ পর্যায়ে যখন তারা অ্যালবার্টের পশুভীতি দূর করার চেষ্টা করছিলেন। এরপর অ্যালবার্টের আর কোনো খোঁজ তারা পাননি। ছোট অ্যালবার্ট হয়তো এই ভীতি নিয়েই শেষ পর্যন্ত বেঁচে ছিলো।

পরবর্তীতে ওয়াটসন তার এই গবেষণাটির উপরে বেশ কয়েকটি লেকচার দেন। একজন পূর্ণবয়স্ক মানুষ সাধারণত যেসব ফোবিয়াতে আক্রান্ত থাকেন, সেসবের সাথে ঘনিষ্ট যোগসূত্র থাকে তার শৈশবকালে ঘটে যাওয়া কোনো ভীতিকর ঘটনার যার প্রভাব দীর্ঘস্থায়ী।

তথ্যসূত্রঃ

1) onlinepsychologydegree.info/influential-psychological-experiments/

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

More News Of This Category
©2021 All rights reserved © kalakkhor.com
Customized By BlogTheme
error: Content is protected !!

Discover more from কালাক্ষর

Subscribe now to keep reading and get access to the full archive.

Continue reading