1. sjranabd1@gmail.com : S Jewel : S Jewel
  2. solaimanjewel@hotmail.com : kalakkhor :
Search Engine Optimization(SEO) নিয়ে কিছু কথা - কালাক্ষর
সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ০৫:২৭ অপরাহ্ন

Search Engine Optimization(SEO) নিয়ে কিছু কথা

  • Update Time : শনিবার, ২১ নভেম্বর, ২০২০
সার্চ ইঞ্জিন অপটামাইজেশান
সার্চ ইঞ্জিন অপটামাইজেশান - ছবি উইকিপিডিয়া

কন্টেন্ট মার্কেটিং – এসইও (SEO) 

সার্চ ইঞ্জিন অপটামাইজেশন (SEO)Search Engine Optimization কথাটির ভীতরে দুটি অর্থবহুল অংশ রয়েছে। একটি হচ্ছে Search Engine এবং অন্যটি হচ্ছে Optimization. তারমানে দাড়াচ্ছে SEO হচ্ছে সার্চ ইঞ্জিন-কে অপটিমাইজেশন করার এক ধরনের প্রযুক্তিগত ওয়েব কৌশল শৈলী।
এটিকে অন্যভাবেও বলা যায়- বিভিন্ন সার্চ ইঞ্জিন হতে কোন একটি ব্লগ/ওয়েবসাইট কিংবা কোন ওয়েব সাইটে আপলোড করা কোন কন্টেন্ট উদাহরণ সরুপ ইউটিউবে আপলোড করা কোন ভিডিও কে সার্চ রেজাল্টের ভাল অবস্থানে অথবা প্রথম পাতায় নিয়ে আসার কৌশল বা প্রক্রিয়াকেই Search Engine Optimization (SEO) বলা হয়ে থাকে।
একে সার্চ ইঞ্জিন হতে ভাল ফলাফল পাওয়ার এক ধরনের নিয়মতান্ত্রিক চালাকিও বলা চলে।

Search Engine ;- সহজ ভাষায় বলা যায় সার্চ ইঞ্জিন হচ্ছে ইন্টারনেটে কীয়ার্ডের মাধ্যমে কোন কিছু খোঁজার এক ধরনের সফটওয়ার বা এপ্লিকেশন। যেখানে কোন কিছু লিখে সার্চ দিলেই চোখের পলকে যে কোন বিষয়ে হাজার হাজার তথ্য আপনার সামনে হাজির করবে। সম্প্রতি সময়ের সবচাইতে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন হচ্ছে Google. এ ছাড়াও জনপ্রিয়তার তালিকায় রয়েছে Bing, Yahoo, Ask ও Yandex সার্চ ইঞ্জিন।

SEO কি আর কেন করা জরুরী;- একটি ব্লগ/ওয়েবসাইট কিংবা কোন কন্টেন্ট শেয়ারিং ওয়েব সাইটে আপলোড করা কোন ভিডিও উদাহরণ সরুপ ইউটিউবে আপলোড করা কোন ভিডিও কে সার্চ রেজাল্টের ভাল অবস্থানে বা প্রথম পাতায় নিয়ে আসার জন্য এবং সার্চ ইঞ্জিন হতে ভাল র‍্যাংকিং পাওয়ার জন্য বা সার্চ ইঞ্জিন হতে সাইটে প্রচুর পরিমানে ভিজিটর পাওয়ার জন্য মূলত সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশন (SEO) করা হয়।
একজন লোক যখন সঠিকভাবে সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজ করবে তখন সার্চ ইঞ্জিন হতে তার কন্টেট এ প্রচুর পরিমানে ভিজিটর বাড়তে থাকবে। কারণ Search Engine Optimization করার ফলে সার্চ ইঞ্জিন সেই ব্যাক্তির কনটেন্টের বিষয়বস্তু সম্পর্কে সুস্পষ্ট ধারনা পাবে। কাজেই যে কোন সাইট-কে সফল করতে হলে ভিন্ন অর্থে কোন সাইট হতে ভাল আয় করার জন্য প্রতিনিয়তই সঠিকভাবে তার ওয়েবসাইটটিকে Search Engine Optimization করা খুবই জরুরী। ধরুন দুই জন মানুষ এক ধরনের দুইটি কন্টেন্ট বানালো – তার পর ইউটিউবে আপলোড দিলো, আপলোড দেওয়ার সময় দুই জনের এক জন প্রপার SCO করে তার কন্টেন্ট আপলোড দিলো, আর এক জন কোন নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করে নিজ মেজাজ মর্জি মাফিক ভিডিও আপলোড দিলো, এখন প্রথম জন যে প্রপার এসইও করে আপলোড দিয়েছে তার কন্টেন্ট সবাই দেখবে কারন তার কন্টেন্ট সার্চ ইঞ্জিনের প্রথম পাতায় আসবে, আর অন্য জনের কন্টেন্ট এ কোন ভিউ আসবে না- কারন যা সার্চ দিয়ে পাওয়া যায় না তা কেউ দেখতে ও যাবে না- রেজাল্ট এক জন আঙ্গুল ফুলে কলাগাছ, আর এক জনের মাথায় হাত- তাই আজকের দিনে অন লাইন ভিত্তিক কন্টেন্ট মার্কেটিং না জানলে অন লাইনে না আসাই বেটার- কারন এতে আপনার সময় এবং অর্থ দুইটি ই লস খাবার সম্ভাবনা ১০০% । 

কোন কন্টেন্ট এর সঠিক এসইও ভোক্তার কাছে সরাসরি কন্টেন্ট ক্রিয়েটর এর কন্টেন্ট এর যোগসুত্র স্থাপন করে- কেমন করে তা বলছি – আপনি যদি গুগলে কিংবা অন্য কোন সার্চ ইঞ্জিনে নাটক দেখবেন বলে সার্চ দেন- কিংবা আপনার প্রয়োজনীয় কোন তথ্য জানতে কোন সার্চ ইঞ্জিনে সার্চ দেন তবে আপনার সামনে প্রথমে যে যে পাতা আসবে তার প্রথম পাচটি স্থানে থাকা জিনিস টাতেই ঢুকেন — একটা গবেষনায় দেখা গেছে সার্চ ইঞ্জিনে সার্চ দেওয়া রেজাল্ট দেখতে ৮৭% মানুষ প্রথম পাচটি র‍্যাংকে আসা জিনিস ই দেখে – ১০% মানুষ প্রথম পাতার পুরোটা দেখে – আর ৩% মানুষ পরের পাতায় ও খোজ নেয় – তার মানে কি দাঁড়ালো? আমি যদি ইউটিউবে কোন নাটক কিংবা সিনেমা আপলোড দেই আর আমার সেই নাটক যদি সার্চ দিলে প্রথম ৫ টির ভিতরে না আসে তবে ৮৭% ভিউয়ার আমার নাটক টাই দেখবে না- বা জান্তেই পারবে না — প্রথম পাতায়  পাঁচ টির নিচে থাকলে ১০% দেখবে, আর ৩% দেখবে যদি সেকেন্ড পেজে আমার কন্টেন্ট থাকে- আর যদি না থাকে তো? আমি যত ভাল কাজ ই আপলোড দেই, সেইটা অস্কার বিজয়ি হউক আর যা ই হউক, নির্মাতা আমি না হয়ে স্টিফেন স্পিল বার্গ ই হউক তাতে কিছুই যায় আসে না – আমার কন্টেন্ট এর ভিউ বারাতে আমার মাস্ট বি ভাল কন্টেন্ট ক্রিয়েটের তারনার সাথে সাথে ভাল SEO করাও তারনা বোধ টাও  জরুরী-   

এসইও এর প্রকার ভেদঃ 

1) অর্গানিক এসইও– সার্চ ইঞ্জিন অপটিমাইজেশনের সকল নিয়ম যথাযথভাবে অনুসরণ করে সার্চ রেজাল্টের পাতায় অবস্থান নেয়ার যাবতীয় প্রক্রিয়া।
(2) পেইড এসইও – গুগল কোম্পানির নিকট টাকার বিনিময়ে সার্চ ইঞ্জিনের প্রথম পাতায় চলে আসা। আপনারা ভালভাবে লক্ষ্য করলে দেখতে পাবেন যে, কোন একটি বিষয় সার্চ দেয়ার পর সার্চ রেজাল্টের সবার উপরের কিছু ওয়েবসাইট থাকে যেগুলিতে ছোট করে Ad লিখা থাকে। সেগুলিই Paid SEO এর মাধ্যমে সবার উপরে এসেছে।

১) অর্গানিক এসইও –
(১) অন পেইজ – কোন কন্টেন্ট আপলোড দেওয়ার সময় সেই সময়ের সব চেয়ে কার্যকর টপ সার্চ র‍্যাংক যুক্ত টাইটেল কী ওয়ার্ড, ঠিক করা, ডিস্ক্রেপশন কি ওয়ার্ড ঠিক করা, সার্চ র‍্যাংক এর ক্রম অনুযায়ী ট্যাগ সেট আপ সাজানো, থাম্বলেন, লিংক বিল্ডিং, শেয়ারিং, ওয়েব মাস্টার টুল সেট আপ, ব্যাক লিংক, শেয়ারিং –
(২) অফ পেইজ – কোন কন্টেন্ট আপলোড দেওয়ার আগে সেই কন্টেন্ট কে অন পেজ এর সাপোর্টিং হিসাবে কাজ করার জন্য যে কাজ করা হয়-

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category
©2021 All rights reserved © kalakkhor.com
Customized By BlogTheme
error: Content is protected !!